ঢাকা সোমবার, ১৮ই নভেম্বর ২০১৯, ৫ই অগ্রহায়ণ ১৪২৬

ডেঙ্গু প্রতিকার


প্রকাশিত:
১ আগস্ট ২০১৯ ১৭:১৭

আপডেট:
১ আগস্ট ২০১৯ ১৮:৩৯

Published: 2019-08-01 17:17:19 BdST

ফাইল ছবি।

বর্তমান সময়ে জনসাধারণের কাছে ডেঙ্গু এক আতঙ্কের নাম। এটি এডিস মশার কামড়ের মাধ্যমে ছড়িয়ে থাকে।  ডেঙ্গু থেকে বাঁচতে হলে সতর্ক থাকা অতিব জরুরি। পরিবারের কোন সদস্যের  ডেঙ্গুর দেখা দিলে নিকটস্থ চিকিৎসকের পরামর্শ নিতে হবে। ডেঙ্গু রোগের নির্দিষ্ট কোন ভ্যাকসিন কিংবা চিকিৎসা নেই। তার জন্য প্রতিরোধের কিছু নির্দেশনা রয়েছে এর থেকে বাঁচতে প্রস্ত থাকতে হবে। চলুন যেনে নেই ডেঙ্গুর লক্ষণ সমুহ ও এর থেকে বাঁচার উপায়। 

ডেঙ্গুর লক্ষণ সমুহ: 

  • হঠাৎ প্রচন্ড জ্বর (তাপমাত্রা ১০৪-১০৫) ফারেনহাইট হতে পাবে। 
  • প্রচন্ড মাথা ব্যাথা ।
  • চোখের পিছনে ব্যাথা।
  • মাংসপেশী ও অস্থি সন্ধিতে প্রচন্ড ব্যাথা।
  • শারীরিক দুর্বলতা।
  • বমি বমি ভাব এবং বমি হওয়া।
  • ত্বকে লালচে দাগ , যা জ্বর হবার ৩-৪ দিন পর দেখা যায়।
  • নাক, দাঁতের গোড়া  ইত্যাদিতে আল্প অল্প রক্তক্ষরণ হওয়া।
  • রক্তবমি বা কালো পায়খানা হওয়া।

ডেঙ্গু জ্বরের চিকিৎসা:

  • ভেজা কাপড় দিয়ে শরীর বারবার মুছে দিয়ে তাপমাত্রা নামাতে হবে।
  • প্রচুর পরিমানে পানি, শরবত ও অন্যান্য তরল খাবার খেতে হবে।
  • জ্বর কমানেরা জন্য প্যারাসিটামল সেবন করা যেতে পাওে, তবে কোনক্রমেই এ্যাসপিরিন জাতীয় ব্যাথার ঔষধ সেবন করা যাবে না।
  • ডেঙ্গু জ্বরে আক্রান্ত ব্যাক্তিকে সবসময় মশারীর ভেতরে রেখে চিকিৎসা করাতে হবে।
  • ডেঙ্গ সম্পূর্ণ ভাল না হওয়া পর্যন্ত বিশ্রামে থাকতে হবে।

প্রতিরোধ ব্যবস্থা:

  • বাড়ির বারান্দায় বা শেডে রাখা ফুলের টবে পানি জমতে দেওয়া যাবে ন।
  • গাছের  গুড়ি, কাঠের বা পুরোনো কোন পাত্রে পনি জমে থাকলে তা পরিস্কার কওে ফেলে দিতে হবে।
  • ঘরের পাশে থাকা ছোট গর্ত কিংবা ডোবা থাকলে তা পরিস্কার করার ব্যবস্থা গ্রহণ করত হবে। 
  • সোফা, আলমারী ও আসবাব পত্রের পিছনে ভালো করে পরিস্কার করে রাখতে হবে।
  • ঘুমানেরা সময় মশারী টানিয়ে ঘুমাতে হবে।
  • বাসায় মশার কয়েল, স্প্রে ইত্যাদি ব্যবহার করতে হবে।
  • বাসার চারিপাশে নেট ব্যবহার করতে হবে।
  • যথাসম্ভব ফুল হাতা জামা, ফুল প্যান্ট পরিধান করতে হবে। 


আপনার মতামত শেয়ার করুন:

Top